হরিয়ানের জনসভায় আসছে আ.লীগের নির্বাচনী রোডম্যাপ

নিজস্ব প্রতিবেদক ০

আওয়ামী লীগের সভানেত্রী ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা রাজশাহী সফরে আসছেন বৃহস্পতিবার। রাজশাহী সফরকালে ওই দিন দুপুরে পবা উপজেলার হরিয়ান চিনিকল মাঠে স্থানীয় আওয়ামী লীগের জনসভায় প্রধান অতিথি হিসেবে ভাষণ দেবেন প্রধানমন্ত্রী। ওই জনসভা থেকে আগামী সিটি করপোরেশন ও একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনী রোডম্যাপ দিতে পারেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। একই সঙ্গে দলের নেতাকর্মীদের উদেশ্যে নির্বাচনের দিক নির্দেশনা দিতে পারেন আওয়ামী লীগের সভানেত্রী। ফলে হরিয়ানের ওই জনসভা আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীদের নির্বাচন মুখি করার সমাবেশ হিসেবেই দেখছেন স্থানীয় নেতারা।

 

 

 
দুই মেয়াদে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ সরকারের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার রাজশাহীতে এটি চতুর্থ সফর। এর আগে ২০১১ সালের ২৪ নভেম্বর রাজশাহী সফরকালে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা মাদ্রাসা মাঠের জনসভায় প্রধান অতিথি হিসেবে ভাষণ দেন। এর পর ২০১৩ সালের ৫ সেপ্টেম্বর রাজশাহী সফরকালে প্রধানমন্ত্রী বাগমারায় আওয়ামী লীগের জনসভায় যোগ দিয়ে প্রধান অতিথির ভাষণ দেন। এর পর ২০১৪ সালের ৮ ফেব্রুয়ারি চারঘাট আওয়ামী লীগের জনসভায় যোগ দিয়ে প্রধান অতিথি হিসেবে ভাষণ দেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

 

 

 

 
চতুর্থবারের মত রাজশাহী সফরকালে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ২৩টি উন্নয়ন প্রকল্পের উদ্বোধন ও ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করছেন। এছাড়াও রাজশাহী অঞ্চলের উন্নয়নে প্রধানমন্ত্রীর কাছে ১৫ দফা দাবি জানাবে স্থানীয় আওয়ামী লীগের নেতারা। আওয়ামী লীগের নেতারা ছাড়াও এ অঞ্চলের অর্থনৈতিক উন্নয়নে ব্যবসায়ীরা ১১ দফা এবং সামাজিক সংগঠন রাজশাহী রক্ষা সংগ্রাম পরিষদের পক্ষ থেকে ১৮ দফা দাবি প্রধানমন্ত্রীর কাছে জানানো হবে।

 

 

 

রাজশাহী জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আসাদুজ্জামান আসাদ বলেন, এ অঞ্চলের উন্নয়নের জন্য রাজশাহী আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে ১৫টি দাবি প্রধানমন্ত্রীর কাছে উপস্থাপন করা হবে। এর মধ্যে রাজশাহীতে অর্থনৈতিক জোন স্থাপন, রাজশাহী শাহমুখদুম বিমানবন্দরকে আন্তর্জাতিক মানের বিমানবন্দরে উন্নিত করা, কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠা এবং বঙ্গবন্ধু সেতু থেকে সোনামসজিদ পর্যন্ত মহাসড়ক চার লেনে উন্নিত করা উল্লেখ্যযোগ। তাদের দাবিগুলোর মধ্যে কয়েকটি বাস্তবায়নের জন্য প্রধানমন্ত্রীর ঘোষণা আসতে পারে বলে আশা করছেন আসাদুজ্জামান আসাদ।

 

 

 

রাজশাহী-৩ (পবা-মোহনপুর) আসনের সংসদ সদস্য আয়েন উদ্দিন বলেন, হরিয়ানের জনসভার সব ধরনের প্রস্তুতি প্রায় শেষ পর্যায়ে। এই জনসভায় প্রায় পাঁচ লাখ আওয়ামী লীগের নেতাকর্মী ও সমর্থকদের সমাগমের টার্গেট নেয়া হয়েছে। আবহাওয়া ভাল থাকলে জনসভায় সমাগমের টার্গেট পুরণ হবে। এ জনসভা থেকে আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীদের জন্য নির্বাচনের দিক নির্দেশনা আসতে পারে বলে মনে করছেন এই সাংসদ।

 

 

 

 
আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য ও রাজশাহী মহানগরের সভাপতি এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন বলেন, আগামী বছরের শুরুর দিকে সিটি করপোরেশন এবং শেষের দিকে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন হতে পারে। ফলে সব দলগুলোই নির্বাচনের দিকে এগুচ্ছে। ইতোমধ্যেই আগামী সিটি ও জাতীয় সংসদ নির্বাচন ঘিরে আওয়ামী লীগের হাই কমান্ড থেকে বেশ কিছু নির্দেশনা দলের নেতাকর্মীদের কাছে এসেছে। যেহেতু গুরুত্বপূর্ন দুইটি নির্বাচনের সময় কাছেই সেহেতু নির্বাচন সংক্রান্ত কিছু দিক নির্দেশনা এ জনসভা থেকে প্রধানমন্ত্রী দিতে পারেন বলে মনে করেন আওয়ামী লীগের এই কেন্দ্রীয় নেতা।

 

 

বাংলার কথা/আলী ইউনুস/সেপ্টেম্বর ১৩, ২০১৭

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Follow by Email
%d bloggers like this: