লালমনিরহাটে নিখোঁজ পুত্রকে ফিরে পেতে পিতার সংবাদ সম্মেলন


মাসুদ রানা রাশেদ, লালমনিরহাট o

নিখোঁজ পুত্রকে ফিরে পেতে এক শারীরিক প্রতিবন্ধী পিতা সংবাদ সম্মেলন করেছেন। বৃহস্পতিবার (৮ অক্টোবর) বিকাল সাড়ে ৫টায় লালমনিরহাট জেলা শহরের বিডিআর হাটস্থ নিজ বাসায় এ সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করেন শারীরিক প্রতিবন্ধী মাসুম পারভেজ। এ সময় লালমনিরহাট জেলার কর্মরত সাংবাদিকবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

শারীরিক প্রতিবন্ধী মাসুম পারভেজ লিখিত বক্তব্য বলেন, আমি একজন শারীরিক প্রতিবন্ধী ও পেশায় ব্যবসায়ী। আজ আমার বড় ছেলে সাদেক আলী পারভেজ সোয়াদ (২১) নিখোঁজ রয়েছে। আমি শারীরিক প্রতিবন্ধী হওয়ায় আমার বড় ছেলে আমার ব্যবসা-বাণিজ্যের কাজে সব সময় সহযোগীতা করেন। কিন্তু হঠাৎ (৪ অক্টোবর) রাত ৯টার পর থেকে আমার ছেলে নিখোঁজ রয়েছে। সে নিখোঁজের পর আমি আমাদের সকল আত্মীয় স্বজনসহ আমি বিভিন্ন স্থানে খোঁজখবর নিয়ে আমার ছেলের সন্ধান না পেয়ে (৫ অক্টোবর) লালমনিরহাট সদর থানায় একটি জিডি করতে যাই। কিন্তু জিডি করতে গিয়ে থানা গেট এলাকায় খবর পাই, আমার ছেলে সাদেক আলী পারভেজ সোয়াদ লালমনিরহাট জেলাধীন শেখ শফিউদ্দিন কমার্স কলেজের অধ্যক্ষ এন্তাজুর রহমান এর মেয়ে (১৮) কে নিয়ে পালিয়েছে। বিষয়টি শুনে আমি হতভম্ব হয়ে পড়ি।

মাসুম পারভেজ আরও বলেন, ওই মেয়ের সাথে আমার ছেলের অনেকদিন আগ থেকে প্রেম ভালবাসার সর্ম্পক ছিল। যা আমি শুনার পর ছেলেকে অনেক শাসন করেছি। এছাড়াও ওই মেয়ের ২০১৯ সালের কোন এক জন্মদিনসহ বিভিন্ন স্থানে ঘোরাফেরার ‘সেলফি’ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম দুজনের ফেসবুকে আপলোড করার অপরাধে শেখ শফিউদ্দিন কমার্স কলেজের অধ্যক্ষ এন্তাজুর রহমান বাদী হয়ে ডিজিটাল আইনে সাদেক আলী পারভেজ সোয়াদের বিরুদ্ধে একটি মামলা দায়ের করেন। যার মামলা নং-৩৫, তাং-১৯/১০/১৯ইং। মামলাটি আদালতে বিচারাধীন রয়েছে।

এর মাঝে (৪ অক্টোবর) থেকে আমার ছেলে নিখোঁজ রয়েছে। সে কোথায় কিভাবে আছে তাও আমি জানি না। এ ঘটনায় আমি থানায় কোন জিডি করতে পারিনি। অথচ একটি প্রভাবশালী মহল মিথ্যা মামলার হুমকি ধামকীতে দেওয়ায় আমি নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছেন। এ অবস্থায় আমি আমার পুত্রকে ফিরত চাই।

বাংলার কথা/অক্টোবর ০৯, ২০২০

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Follow by Email
%d bloggers like this: