করোনায় মৃত্যু: ঠাকুরগাঁওয়ে দাফনে প্রতিবন্ধকতা, চিকিৎসকসহ নতুন শনাক্ত ৭

ছবি:ইউএনবি।

বাংলার কথা ডেস্ক ০

ঠাকুরগাঁওয়ে করোনায় আক্রান্ত হয়ে সদর উপজেলার জগন্নাথপুর গ্রামের একজনের (৭৫) মৃত্যু হয়েছে।

দিনাজপুর এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের করোনা ইউনিটে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মঙ্গলবার সকালে তিনি মারা যান। পরে তার লাশ আনা হলে এলাকায় আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে ও লাশ দাফনে প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি হয়। ইউএনও’র হস্তক্ষেপে বিকালে স্বাস্থ্যবিধি মেনে লাশ দাফন করা হয়।

এদিকে মঙ্গলবার নতুন করে সদরে ছয়জন ও রাণীশংকৈলে একজনের করোনা শনাক্ত হয়েছে।

মঙ্গলবার সন্ধ্যায় দিনাজপুর এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ থেকে প্রেরিত রিপোর্ট অনুযায়ী ঠাকুরগাঁও আধুনিক সদর হাসপাতালের তত্ত্বাবধায়ক (মেডিসিন বিশেষজ্ঞ), একজন শিশু বিশেষজ্ঞ ও তার স্ত্রীসহ সদর উপজেলায় ছয়জন ও রাণীশংকৈল উপজেলা হেলথ কমপ্লেক্সের একজন চিকিৎসকের করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে।

এনিয়ে জেলায় মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়াল ৫৫২ জনে।

সিভিল সার্জন ডা. মাহফুজার রহমান সরকার জানান, মঙ্গলবার পর্যন্ত সদরে ২৬২ জন, হরিপুরে ৬২ জন, পীরগঞ্জে ৫৩ জন, রাণীশংকৈলে ৬৯ জন ও বালিয়াডাঙ্গীতে মোট ১০৬ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে।

এপর্যন্ত সম্পূর্ণ সুস্থ হয়েছেন ২৮৭ জন। মারা গেছেন ৯ জন।

মঙ্গলবার নতুন করে ৬৭ জনের নমুনা পরীক্ষার জন্য দিনাজপুর পাঠানো হয়েছে। এপর্যন্ত মোট পাঠানো হলো ৪০৫১ জনের নমুনা।

সূত্র:ইউএনবি।

বাংলার কথা/ আগষ্ট ১২, ২০২০

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Follow by Email
%d bloggers like this: