আড়ানী পৌর মেয়র মুক্তার আলীর পর এবার তার ছেলে রাজু গ্রেফতার

Share on facebook
Facebook
Share on twitter
Twitter
Share on linkedin
LinkedIn
Share on whatsapp
WhatsApp

বাঘা (রাজশাহী) প্রতিনিধি :
রাজশাহীর বাঘা উপজেলার আড়ানী পৌর মেয়র মুক্তার আলীর ছেলে রাজু আহম্মেদকে মাদক মামলায় গ্রেফতার করেছে পুলিশ। মঙ্গলবার (১৪ সেপ্টেম্বর) বিকেল সাড়ে ৩ টার সময় নিজ বাড়ি পিয়াদাপাড়া এলাকা থেকে রাজশাহী ডিবি পুলিশ তাকে গ্রেফতার করে। বিয়টি নিশ্চিত করেন বাঘা থানা অফিসার ইনচার্জ(ওসি)সাজ্জাদ হোসেন । এর আগে মাদক ও অস্ত্র মামলায় গ্রেফতার করা হয় তার পিতা মেয়র মুক্তার আলীকে।

 

অনুসন্ধ্যানে জানা যায়, গত ৬ জুলাই সন্ধ্যায় আড়ানী পৌর বাজারে মনোয়ার হোসেন মঞ্জু নামের এক কলেজ শিক্ষককে মারপিট করে মেয়র মুক্তার আলী। এ ঘটনায় ওই দিন রাতেই ভুক্তভোগী শিক্ষক বাঘা থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। এ মামলায় রাত তিনটার দিকে বাঘা থানা পুলিশ তার বাড়িতে অভিযান চালায়। এ সময় সু-কৌশলে পালিয়ে যায় মুক্তার আলী । অত:পর তার বাড়ি তল্লাশী করে ৯৪ লাখ টাকা, সই করা চেক, আগ্নেয়াস্ত্র এবং পিতা-পুত্র উভয়ের রুম থেকে মাদক উদ্ধার সহ তার স্ত্রী এবং দুই ভাতিজাকে আটক করে পুলিশ।

এদিকে ঘটনার দু’দিন পর ৯ জুলাই ভোর রাতে পাবনা জেলার পাকশী এলাকা থেকে মুক্তার আলী ও তার শ্যালক রজন আলীকে গ্রেফতার করে পুলিশ এরপর মেয়রের বাড়িতে অভিযান চালানো হলে আবারও এক লাখ ৩২ হাজার টাকা, মাদক এবং দেশীয় ধারালো অস্ত্র উদ্ধার করা হয়। এই ঘটনায় স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয়ের উপসচিব ফারুক হোসেন স্বাক্ষরিত এক প্রজ্ঞাপনের মাধ্যকে ১২ জুলাই মেয়র মুক্তার আলীকে সাময়িক বরখাস্তের নির্দেশ দেন। মুক্তার আলী বর্তমানে কারাগারে রয়েছেন।

 

সর্বশেষ ১৪ সেপ্টেম্বর গোয়েন্দা তথ্যোর ভিত্তিতে রাজশাহী জেলা পুলিশের গোয়েন্দা শাখার একটি দল মাদক মামলার পলাতক আসামী মেয়র মুক্তার আলীর একমাত্র ছেলে রাজু আহম্মেদকে গ্রেফতার করে। সে বর্তমানে জেলা পুলিশ হেফাজতে রয়েছে। প্রাথমিক জিজ্ঞাবাদের পর তাকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে প্রেরণ করা হবে বলে নিশ্চিত করেন রাজশাহী জেলা পুলিশের মুখপাত্র ও অতিরিক্ত পুলিশ সুপার ইফতে খায়ের। #

বাংলার কথা/নুরুজ্জামান/১৪ সেপ্টম্বর/২০২১

এই রকম আরও খবর

Share on facebook
Facebook
Share on twitter
Twitter
Share on linkedin
LinkedIn